Thursday, 10 March 2016

প্রেগ্রামিং এ ডাটা এবং ভেরিয়েবল

প্রেগ্রামিং এ ডাটা এবং ভেরিয়েবল

(১ম খন্ড) - সবুজ কর্মকার 


প্রেগ্রামিং মানেই কোন সমস্যার ও তার সমাধান। বর্তমানে প্রতিটা স্তরে কম্পিউটার তথা সফটওয়্যার ব্যবহার হচ্ছে ব্যবসা, শিক্ষা, চিকিৎসা, সংস্কৃতি, খেলাধুলা ইত্যাদি সব স্তরে কম্পিটার প্রযুক্তি তথা সফটওয়্যার ওতোপ্রোত ভাবে জড়িত। একটু লক্ষ্য করে যদি ভাবেন তাহলে বুঝবেন যে, যত সমস্যা এবং তার সমাধান তা কিন্তু তথ্য বা ডাটার সাথে সম্পর্কযুক্ত । প্রোগ্রামিং এ যখন এই ডাটা ব্যবহার করা হয় তা আগে থেকে কম্পিউটার কে বলে দিতে হয়। একটু সহজ করে বলছি- আমরা বীজ গনিত করেছি সবাই, সেখানে সমীকরন পেয়েছি, যেমন- x = a + b  আমরা এই সমীকরন থেকে বুঝতে পারি যে, x, a, b তিনটা আলাদা আলাদা ভেরিয়েবল। a, b এর মান যোগ করে যা হবে তা x এর মানের সমান হবে। আবার x > a + b এর মানে হল a, b এর মান যোগ করে যে যোগফল হবে তার চেয়ে বড় মান হবে x এর মান
ধরুন আপনি যোগ করার প্রোগ্রাম করবেন, সে ক্ষেত্রে প্রথমেই ভাবতে হবে আপনি কয়টা সংখ্যার যোগ করবেন। যদি আপনি তিনটা সংখ্যার যোগ করেন চান তাহলে আপনাকে সংখ্যা তিনটা রাখার জন্য তিনটা কন্টেইনার বা পাত্র লাগবে। আর  যোগফল রাখার জন্য আরেকটা পাত্র বা কন্টেইনার লাগবে।
 

  চিত্রের মাধ্যমে আমরা দেখতে পাই যে,  A, B, C এবং X  চারটা ভেরিয়েবল। আপনি তিনটা সংখ্যার যোগ করতে চাচ্ছেন তাই আপনাকে তিনটা ভেরিয়েবল ব্যবহার করতে হবে। আর যোগফল সংরক্ষন করার জন্য আপনাকে আরেকটা ভেরিয়েবল ব্যবহার করতে হবে। এভাবে আপনি যোগ, বিয়োগ, গুন, ভাগ বা যে কোন গানিতিক হিসাব করতে পারবেন ভেরিয়েবল ঘোষনা (declare) করে

  


Visit Youtube

No comments:

Post a comment