Sunday, 2 December 2018

Microsoft PowerPoint Bangla Video Tutorial ( এম এস পাওয়ার পয়েন্ট বাংলা ভিডিও টিউটোরিয়াল)

অফিসিয়াল কাজের মধ্যে এম এস পাওয়ার পয়েন্ট একটি গুরুত্ব পূর্ণ প্রোগ্রাম। Microsoft Office সফটওয়্যার প্যাকেজে আপনি Microsoft PowerPoint Program টি পাবেন। আজকাল প্রতিটা কম্পিউটার ও ল্যাপটপের সাথে Microsoft Office সফটওয়্যার প্যাকেজ ইন্সটল করে দেয়া হয়। এম এস পাওয়ার পয়েন্ট দিয়ে কি হয়? এর উত্তর হচ্ছে- আপনি যদি কম্পিউটার এর সাহায্যে কোন প্রেজেন্টেশন বানাতে চান তাহলে পাওয়ার পয়েন্ট প্রোগ্রামটি আপনাকে সাহায্য করবে। যে কোন প্রকার প্রেজেন্টেশন আপনি চাইলেই বানাতে পারবেন যেমন- শিক্ষা বা গবেষণা নিয়ে কিংবা ব্যবসা বা মারকেটিং নিয়ে। আপনি আপনার মত করে ডিজাইন করতে পারবেন এর সাহায্যে খুব সহজে। যারা এম এস পাওয়ার পয়েন্ট শিখতে চান তারা নিচের দেয়া লিংক থেকে বাংলা ভিডিও টিউটোরিয়াল দেখে শিখুন।


ভিডিও ভাল লাগলে সাবস্ক্রাইব করতে ভুলবেন না কিন্তু। 

Visit our Official Website  For More Learning- www.itschool24.com

 



Friday, 14 September 2018

Microsoft Word- এম এস ওয়ার্ড

MS word হল Microsoft Company এর প্রস্তুত করা Microsoft Office এর একটি Application Software.
মাইক্রোসফট ওয়ার্ড দিয়ে আমরা সাধারনত লেখা-লেখির কাজ করে থাকি। যে কোন স্টাইলে/ফন্টে আমরা লিখতে পারি কীবোর্ড দিয়ে টাইপ করে। লেখা লেখির কাজ ছাড়াও আমরা বেশ কিছু কাজ এই সফটওয়্যার দিয়ে করতে পারি। যেমন- টেবিল বানানো, ছবি এটাস করা, চার্ট বানানো, বিভিন্ন চিত্র এবং চিহ্ন ব্যবহার করা ইত্যাদি।
যে কোন কাজ শিখতে চাইলে ভিডিও টিউটোরিয়াল দেখে শেখা সব চেয়ে উত্তম।
নিচে কিছু ভিডিও লিংক দেয়া হল যা দেখে আপনি এম এস ওয়ার্ডের কাজ শিখতে পারেন।

১। Microsoft Word (মাইক্রোসফট ওয়ার্ড) দিয়ে কিভাবে টেবিল তৈরি করবেন?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/2wfS92YrTEs

 

২। Microsoft Word (মাইক্রোসফট ওয়ার্ড) দিয়ে কিভাবে কভার পেইজ ডিজাইন করবেন?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/iyx9qQzvA6o

 

৩। মাইক্রোসফট ওয়ার্ডে কিভাবে সহজে বাংলা লিখবেন?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/4Z7cQJZTpVU

 

৪। How to use Equation and formula, symbol in MS Word? বীজগণিতের সূত্র ও সমীকরন লিখুন-

লিঙ্কঃ https://youtu.be/jTMBvcveO-o



Visit our Official Website  For More Learning- www.itschool24.com

 

 

 

 



Tuesday, 11 September 2018

MYSQL ডাটাবেস

MYSQL হল এক প্রকার ডাটাবেস ল্যাংগুয়েজ। ডাটা বা তথ্যকে মেমরিতে সংরক্ষন করার জন্য এই প্রোগ্রামিং ভাষাটি আবিস্কার করেছিল Oracle Corporation.
SQL এর মানে হল Structured Query LanguageMYSQL হল বিশেষ ধরনের প্রোগ্রামিং ভাষা যা শুধু মাত্র ডাটা নিয়ে কাজ করে। ডাটাবেস, টেবিল এবং টেবিলের ডাটা নিয়ে কাজ করে এই প্রোগ্রামিং ভাষা। একে কুয়েরি ল্যাংগুয়েজও বলা হয়। কারন এর প্রতিটা কম্পান্ড এক এক টা কুয়েরি। প্রথমে একটা ডাটাবেস বানাতে হবে। এর নাম দিতে হবে। এর অধীনে এক বা একাধিক টেবিল থাকবে। প্রতিটা টেবিল কিছু না কিছু কলাম/ফিল্ড দিয়ে বানাতে হয়। প্রতিটা ফিল্ডে ওই ফিল্ডের ভেরিয়েবলের টাইপ অনুসারে ডাটা সংরক্ষণ করা যাবে। ডাটা হতে পারে যে কোন তথ্য। যেমন- সংখ্যা, টেক্সট, অডিও কিংবা ভিডিও।

সিন্ট্যাক্স/ফরম্যাটঃ  

SELECT Table_Column_Name FROM Table_Name
WHERE Condition;

Example:  

SELECT name, address, mobile, salary FROM employee where id= 2;
এখানে employee হচ্ছে ডাটাবেসের টেবিলের নাম এবং name, address, mobile, salary হল টেবিলের কলামের নাম। আর id= 2 হচ্ছে Condition বা শর্ত।
employee টেবিলের যে চাকুরিজীবির  id/ আইডি হল ২ তার নাম, ঠিকানা, মোবাইল এবং বেতন ডাটা দেখাবে।
ডাটাবেসের টেবিলে আমরা ডাটা Insert, Update বা Delete করতে পারব। অথবা টেবিল থেকে ডাটা ডিসপ্লে করাসহ ইত্যাদি কাজ গুলো আমরা কুয়েরি কমান্ড লাইন দিয়ে করতে পারি।
ভিডিও দেখে শিখুন  MYSQL শুরু থেকে শেষ বিস্তারিতভাবে।

১। How to Create mysql database and table?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/wg57X7FFuis

২। How to insert, update and delete data in MYSQL?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/IK7n3k0ZN8g

 

৩। How to Add a column, Update data and Delete the column in MYSQL?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/ycZCYvorfZQ

 

৪। How to insert data into multiple rows of a table in MYSQL?

লিঙ্কঃ https://youtu.be/X0SbZOoThJc

 

 

Visit our Official Website  For More Learning- www.itschool24.com

 

 

 

 



Sunday, 9 September 2018

এম এস এক্সেল শিখুন উদাহরন এবং প্রজেক্ট তৈরি করে ( Microsoft Excel with Project and Example )

Microsoft Excel দিয়ে আপনি কি কি করতে পারবেন?
এম এস এক্সেল (MSExcel) দিয়ে সাধারণত গানিতিক হিসাব নিকাশ এর কাজ করা হয়ে থাকে। ফর্মুলা ব্যবহার করে এসব অংক খুব সহজে সমাধান করা হয়ে থাকে। আমি প্রতিটা কাজের সাথে এসব কাজের ভিডিও টিউটিরিয়াল লিঙ্ক দিলাম, যাতে আপনারা প্রাক্টিক্যালি শিখতে পারেন। চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করবেন যদি ভাল লাগে।

১। দুই বা ততোধিক সংখ্যার যোগ, বিয়োগ, গুন, ভাগ ইত্যাদি বেড় করা।
২। অনেগগুলো সংখ্যার মধ্যে ছোট বা বড় সখ্যা নির্ণয় করা। ( https://youtu.be/W9rR1rZt8Mg )
৩। গড়, মধ্যমা ও প্রচুরক নির্ণয় করা ( https://youtu.be/DPhR1pJvoAU )
৪। সুদ, সুদের হার এবং সুদাসল নির্ণয় করা ( https://youtu.be/K6TQcMIUurk )
৫। গ্রেড ও জিপিএ নির্ণয় করা ( https://youtu.be/Nj7_jq0u_YQ )
৬। স্যালারি সিট বানানো ( https://youtu.be/saLX_LM0JKA )
৭। জমা-খরচ বেড় করা ( https://youtu.be/e1N7pxhfQaM )
৮। শতকরা নির্ণয় ( https://youtu.be/te6VmYqOLgQ )
৯। লাভ-ক্ষতি নির্ণয় করা ( https://youtu.be/rMXwIHC0rVw )
১০। Invoice তৈরি করা ( https://youtu.be/R9gZz-o_hYo )
১১। ক্যালেন্ডার তৈরি করা ( https://youtu.be/9aY6W4AB58c )
ইত্যাদি হিসাব করা যায়
এছাড়াও গ্রাফ/ চার্ট তৈরি করা যায় এক্সেল দিয়ে - ( https://youtu.be/wcc675PSGuw )

Visit our Official Website  For More Learning- www.itschool24.com

 


Friday, 27 July 2018

জানা-অজানা (কম্পিউটার প্রোগ্রামিং)

আপনি জেনে অবাক হবেন যে, সব চেয়ে বড় বড় সফটওয়্যার বানাতে যে কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ভাষা ব্যবহার হয়েছে তা হলে "সি" ল্যাংগুয়েজ। Window, Linux অপারেটিং সিস্টেম বানাতেও "সি" ভাষা ব্যবহার করা হয়েছে। মোবাইল, ডাটাবেস, 3D ইত্যাদি কাজেও "সি" ভাষার অনেক ভূমিকা। যদি আপনিও প্রোগ্রামিং ভাষা শিখতে ইচ্ছুক থাকেন তাহলে আমাদের চ্যানেলের ভিডিও টিউটরিয়াল দেখে শিখতে পারেন- নিচে আপনাদের জন্য লিঙ্ক দেয়া হলঃ


১। কিভাবে কোড ব্লকস কম্পাইলার ও ইডিটর আপনার পিসিতে ইন্সটল দিবেন- https://youtu.be/5RVb84oTNf0


২। "সি" ভাষার পরিচয় ও হ্যালো প্রোগ্রাম- https://youtu.be/MCr2KVTfzSk


৩। ডাটা টাইপ এবং ভেরিয়েবল- https://youtu.be/RgvJaYcdXcE


৪। ইনপুট এবং আউটপুট টেকনিক-https://youtu.be/NztCc23cfEw


৫। for Loop টেকনিক - https://youtu.be/xisJyKyvm4A


৬। দুটি সংখ্যার মধ্যে বড় সংখ্যাটি নির্ণয়ের প্রোগ্রাম-


৭। ১- ১০০ ডিসপ্লে করার 'সি প্রোগ্রাম-


৮। সিরিজের যোগফল নির্ণয়ের 'সি' প্রোগ্রাম-

৯। ভাওয়েল বা কন্সোন্যান্ট টেস্ট করার “সি” প্রোগ্রাম-

Thursday, 5 April 2018

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ( Social Communication Media )

এক সময় যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম ছিল চিঠি। সময়ের পরিবর্তনের সাথে সাথে মানুষের জীবন যাত্রার মান ও ধরনের অনেক পরিবর্তন হয়েছে লক্ষ্য করা যায়। তথ্য ও প্রযুক্তির উন্নতির ফলে আমরা দ্রুত সভ্যতাকে পরিবর্তন করতে পেরেছি।
ইন্টারনেট আবিস্কার এর পর থেকে বিশ্বজুড়ে এর অভূতপূর্ব পরিবর্তন সাধিত হয়েছে।
নিমিষের মধ্যে মানুষ যোগাযোগ করতে পারছে দূর-দূরান্তে। টেক্সট মেসেজ, অডিও কল, ভিডিও কলসহ সব ধরনের যোগাযোগ স্থাপন করা সম্ভব এখন। আর এসব সুবিধা দিয়ে থাকে বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যম। যেমন- ফেইসবুক, ইউটিউব, টুইটার, হোয়াটস এপ, ইমো, ভাইভারসহ নানা সামাজিক যোযাযোগ মাধ্যম। 
২০১৮ সালের একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের জরিপ অনুযায়ী সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সক্রিয় ব্যবহারকারীর সংখ্যা অনুযায়ী কোন কোন সামাজিক যোযাযোগ মাধ্যম এগিয়ে আছে তাদের একটি তালিকা দেয়া হল-




তাদের সার্ভে অনুযায়ী- ফেইসবুকের ১ বিলিয়ন (এক লক্ষ কোটি) রেজিস্টার্ড একাউন্ট অতিক্রম করেছে এবং বর্তমানে তাদের মাসিক ২.২ বিলিয়ন সক্রিয় ব্যবহার কারী রয়েছে।



Reff: https://www.statista.com/statistics/272014/global-social-networks-ranked-by-number-of-users/

Sunday, 1 April 2018

মাইক্রোসফট এক্সেলের সব চেয়ে সহজ এবং প্রয়োজনীয় সুত্র ( Very Easy and most Necessary Formula in MS Excel )

মাইক্রোসফট এক্সেল দিয়ে আমরা সাধারনত হিসাবের কাজ করে থাকি। আমাদের ব্যবসায়িক বা ব্যক্তিগত হিসাবকে খুব সুন্দরভাবে এক্সেল দিয়ে করতে পারি এবং তা সংরক্ষণও করতে পারে কম্পিউটার বা মোবাইলে। আজ আমরা এক্সেলের সব চেয়ে সহজ ও প্রয়োজনীয় কিছু সূত্র ও তাদের ব্যবহার দেখব। 
সুত্র/ ফর্মুলা- ১। SUM() ফাংশন
আমরা যদি একই সাথে দুই বা ততোধিক সংখ্যার যোগ করতে চাই এক্সেল সীটে তবে আমাদেরকে SUM() ফাংশন ব্যবহার করতে হবে।
উদাহরনঃ ধরুন, আমরা চাই কিছু সংখ্যার যোগ করতে যেমন- ৫+৪৫+৮৭+১২২+৩৭+৪৩+৬৭+৮৪৩= ?
সমাধানঃ

 


সুত্র/ ফর্মুলা- ২। MAX() ফাংশন

অনেকগুলো সংখ্যার মধ্যে সবচেয়ে বড় সংখ্যা নির্ণয়ের জন্য MAX() ফাংশন
ব্যবহার করা হয়।
উদাহরনঃ ধরুন, ৫, ৪৫, ৮৭, ১২২, ৩৭, ৪৩, ৬৭ এরকম কিছু সংখ্যা রয়েছে। এর মধ্যে সব চেয়ে বড় সংখ্যাটি কত?
সমাধানঃ

 





সুত্র/ ফর্মুলা- ৩। MIN() ফাংশন
ম্যাক্স ফর্মুলা দিয়ে যেমন সবচেয়ে বড় সংখ্যা বেড় করা হয় ঠিক সেরকমই MIN() ফাংশন দিয়ে সবচেয়ে ছোট সংখ্যা বেড় করা হয়। শুধু মাত্র সূত্রে MAX এর পরিবর্তে  
MIN শব্দটি লিখবেন।

সুত্র/ ফর্মুলা- ৪। COUNT() ফাংশন
উদাহরনঃ ধরুন- আপনি অনেক গুলো সখ্যা নিয়ে হিসাব করতেছেন। আপনার জানা প্রয়োজন হল যে,  কতগুলো সংখ্যা সেখানে আছে। এর সমাধান হিসাবে আপনি COUNT() ফাংশন ব্যবহার করতে পারেন। চিত্রের দিকে ভাল করে লক্ষ করে বোঝার চেস্টা করুন।

 


Visit our Official Website  For More Learning- www.itschool24.com

 


আপনি যদি লেখা ও চিত্র দেখে ভাল না বুঝেন বা আরো বেশি জানতে ও শিখতে চান তাহলে আমাদের ইউটিউবের ভিডিও দেখে খুব সহজের এক্সেলের কাজ শিখতে পারেন। সাবস্ক্রাইব ও কমেন্ট করে আমাদের সাথেই থাকুন। ধন্যবাদ সবাইকে।


Wednesday, 28 March 2018

ডিজিটাল মিডিয়ায় ব্যক্তি আর বাস্তবিক ব্যক্তি

প্রথমেই আমাদের জানতে হবে ডিজিটাল মিডিয়া কি?
ডিজিটাল মিডিয়া হল এমন এক ধরনের মিডিয়া যা ইলেকট্রনিক মেশিন দ্বারা পরিচালিত হয় । ডিজিটাল মিডিয়ার আওতা বা পরিধি দিন দিন বেড়ে যাচ্ছে। ফেইসবুক, টুইটার, ইউটিউব ইত্যাদি হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়া যা ডিজিটাল মিডিয়ার অন্তর্ভুক্ত। এছাড়া বিভিন্ন ধরনের ওয়েব সাইট বা ব্লগ সাইট আছে যেখানে মানুষ একাউন্ট খুলে তাদের নিজেদের মত প্রকাশ করতে পারে। সমস্যাটা হচ্ছে এখানে যে, ব্যক্তি তার আসল বা প্রকৃত তথ্য দিয়ে একাউন্ট খুলছে কি না। ধরুন- “ক” নামের এক জন ব্যক্তি ফেইসবুকে বা অন্য যে কোন সোশ্যাল মিডিয়ায় যখন একাউন্ট খুলছে তখন সে তার নাম “ক” না দিয়ে দিছিয়ে- “খ” । এভাবে যদি তার অনেক তথ্য মিথ্যা তথ্য দিয়ে সাজিয়ে একাউন্ট ওপেন করে তবে- সোস্যাল মিডিয়ার সক্ষমতা এখনো এমন হয়নি যে তা বুঝতে পারবে। এসব হচ্ছে আমাদের ডিজিটাল মিডিয়ার কারিগরি বা টেকনিক্যাল সমস্যা। আমাদের দেশে এরকম অনেকেই আছে যারা এসব অপরাধমূলক কাজ করে থাকে। তারা আমাদের সমাজে মানুষের মধ্যে বিভিন্ন রকম অস্থিরটা ছড়ায়, ধর্মীয় বিদ্বেষ বাড়ায় মোট কথা সমাজের শান্তি নস্ট করে থাকে। যারা এসব করে তারা আইনের চোখে ধরা ছোয়ার বাইরে থেকে যায়। অনেক সময় সাধারন মানুষ হয়রানির স্বীকার হয়, যে কি না জানেই না তার নামে এরকম ফেইক ফেইসবুক একাউন্ট আছে।
এখন প্রশ্ন হল এসব সমস্যার সমাধান কি?
ফেইসবুকসহ সকল ডিজিটাল মিডিয়া প্রতিনিয়ত এ নিয়ে গবেষনা করে যাচ্ছে যে কিভাবে ব্যবহারকারীর তথ্য গোপন রাখা যায়। কিভাবে সামাজিক সহিংসতা রোধ করা যায়।
এসব প্রতিষ্ঠানকে এমনভাবে কাজ করা উচিত বা তাদের সিস্টেম এমন ভাবে ডিজাইন করা উচিত যাতে এক মাত্র প্রকৃত ব্যক্তি যেন এই সেবা নিতে পারে। তাহলেই এই সমস্যার অনেক সমাধান মিলবে। পাশাপাশি যারা সচেতন ফেইসবুক বা ডিজিটাল মিডিয়া ব্যবহারকারি তাদেরকেও পদক্ষেপ নি্তে হবে। তারা যেন- নিজের জ্ঞান ও বুদ্ধিমত্ত্বা দিয়ে বুঝতে পারে কোন একাউন্টি প্রকৃত আর কোনটি নকল/ফেইক।






Thursday, 22 March 2018

অনলাইন থেকে কাজ করে ইনকাম করুন পর্ব- ২ (Earn money from Online Micro Job Market Place)

প্রিয় পাঠক, আপনাদের সবাইকে স্বাগতম। আজ আমরা আপনাদেরকে অনলাইকে কাজ করার জন্য একটি বিশ্বস্থ মার্কেট প্লেস নিয়ে কথা বলব। যারা সাইন আপ/ রেজিস্ট্রেশন করতে পারেন, নতুন জিমেইল খুলতে পারেন, ফেইসবুক, টুইটার, টেলিগ্রাম এসব সোশ্যাল মিডিয়া সম্পর্কে ধারনা আছে। পোস্ট করা, লাইক, শেয়ার করা এসব যারা করতে পারেন, সাইন আপন করে ইমেইল ভেরিফিকেশন করা এসব কাজে যারা দক্ষ তারা এই সাইটে কাজ করতে পারবেন। প্রতিটা জব সম্পন্ন করতে ৫-১০ মিনিট সময় লাগবে। যদি কাজ সঠিক ভাবে সম্পন্ন করতে পারেন যা ক্লাইন্ট জব বিবরনিতে বলে দিবে তাহলে প্রতিটা কাজে যে ডলার উল্লেখ থাকবে তা পাবেন। খুবই ট্রস্টেট সাইট। আপনি যত কাজ সম্পন্ন করতে পারবেন তত পেমেন্ট পাবেন। ৫ ডলার হলে আপনি পেমেন্ট Withdraw করতে পারবেন। এ জন্য আপনার Payza বা Paypal এ একাউন্ট থাকতে হবে। আমি আপনাদের সুবিধার জন্য নিচে লিঙ্ক দিচ্ছি।

রেজিস্ট্রেশন করুন-  https://picoworkers.com/?a=201c95f7
Note: You will get $1 bonus if you register from the link.


অনলাইন পেমেন্ট একাউণ্ট (Payza) খোলার জন্য রেজিস্ট্রেশন করুন-  https://goo.gl/AHNp8J



Tuesday, 20 March 2018

অনলাইন থেকে সহজে ইনকাম করার ৫ টি ওয়েব সাইট (5 Easiest Outsourcing Website )

ওয়েব সাইট ভিজিট করে আপনি কিভাবে টাকা (ডলার $$$) ইনকাম করতে পারবেন সেই সম্পর্কে বেশ কিছু সাইটের তথ্য দিব আজ। আমি গত পোস্টে এসব সম্পর্কে বিস্তারিত লিখেছি।  কিভাবে আপনি অনলাইনে পেইজ ভিউ/ ভিজিত করে ইনকাম করবেন এবং সেই টাকা কিভাবে অনলাইন একাউন্ট থেকে উত্তোলন করবেন। আপনারা যারা পূর্বের পোস্টটি পড়েননি তারা প্রথমে  সেইলেখাটা পড়ুন  এবং পেমেন্ট কিভাবে পাবেন তা জানতে এই লিংকটা ভিজিট করুন । এর চেয়ে সহজ পদ্ধতিতে অনলাইনে ইনকাম করার আর কোন কাজ নেই। যদিও এই ইনকাম এর পরিমান খুব কম, তার পরেও যারা এক্সট্রা কিছু  ইনকাম করতে চাচ্ছেন তারাই এই কাজ করতে পারবেন। যেসব সাইট এই কাজ দিবে আপনাকে তাদের লিঙ্ক আমি নিচে দিচ্ছি। আপনারা প্রথমে রেজিস্ট্রেশন করবেন। আপনার জিমেইল একাউণ্ট দিয়ে। একাউণ্ট করতে জি-মেইল ভেরিভাই ওরা করবে। তাই আপনার সঠিক জি-মেইল দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করবেন।











আপনি যদি প্রতিদিন এই পাঁচটি ওয়েব সাইটে কাজ করেন তাহলে প্রতি মাসে ১০-২০ ডলার ইনকাম করতে পারবেন। প্রতিটি ওয়েব সাইটে আপনাকে ১৫-৩০ টা পেইজ ভিজিট করার জন্য অ্যাডভারটাইজ দিবে, আপনি প্রতিদিন যে কোন সময় তা করতে পারবেন।
পেমেন্ট কীভাবে পাবেন তা জানতে ভিজিট করুন আমাদের এই লিঙ্কে-  http://amarwebbd24.blogspot.com/2018/03/online-payment-bank-account-create-free.html


Monday, 19 March 2018

অনলাইন পেমেন্ট একাউন্ট ( Online payment Bank Account- Create Free)

Paypal, Payza, Bitcoin, Parfectmoney, Skrill ইত্যাদি এগুলো হল অনলাইন পেমেন্ট ব্যাংক একাউন্ট। এসব একাউন্ট ব্যবহার করে আপনি অনলাইন থেকে টাকা বা ডলার ইনকাম করে রাখতে পারেন এবং আপনার ইচ্ছা মত আপনি বিকাশ, রকেট এ টাকা সেন্ড মানি করতে পারেন খুব সহজে।অনলাইন ব্যাংক একাউন্ট থাকলে আপনি অনেক সুবিধা পেতে পারেন যেমন- অনলাইনে কেটা-কাটা করে বিল পরিশোধ করা, কার একাউন্টে মানি ট্রান্সফার করা ইত্যাদি। সব চেয়ে বড় কথা হল অনলাইন ব্যাংক একাউন্ট করতে আপনার কোন টাকা প্রয়োজন হবে না।
বাংলাদেশে এখন সব চেয়ে জনপ্রিয় এবং বাংলাদেশ সরকার এর অনুমতি প্রাপ্ত Payza
Payza তে একাউন্ট খুলতে আপনার যা যা প্রয়োজন হবে তা হল-
১। একটা জিমেইল একাউন্ট (আপনার ব্যক্তিগত)
২। জাতীয় পরিচয় পত্রের স্ক্যান কপি (Both side)
Ø  Payza তে একাউন্ট খুলতে নিচের লিঙ্কে ক্লিক করে রেজিস্ট্রশন করুন এবং আপনার সঠিক তথ্য প্রদান করুন-
https://goo.gl/AHNp8J
Parfectmoney হল আরেকটি জনপ্রিয় অনলাইন ব্যাংক প্রতিষ্ঠান। Parfectmoney তে একাউন্ট খুলতে আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের স্ক্যান কপি প্রয়োজন হবে না।
Ø  Parfectmoney তে একাউন্ট খুলতে নিচের লিঙ্কে ক্লিক করে রেজিস্ট্রশন করুন এবং আপনার সঠিক তথ্য প্রদান করুন-
যারা অনলাইনে Bitcoin Earn করেন তাদের জন্য একটি  bitcoinwallet একাউণ্ট থাকা প্রয়োজন। আপনার বিট কয়েন ডলারে কনভার্ট করে তা আপনি সহজেই পেতে পারেন।
Ø  Bitcoin এ একাউন্ট খুলতে নিচের লিঙ্কে ক্লিক করে রেজিস্ট্রশন করুন এবং আপনার সঠিক তথ্য প্রদান করুন-  




Sunday, 18 March 2018

অনলাইনে ইনকাম ( Earn Money From Online ) পর্ব- ১

আমরা অনেকেই চাই কম্পিউটার দিয়ে অনলাইনে কিছু ইনকাম করতে। কিন্তু কিভাবে করব? কি কি লাগবে? কি কাজ করতে হবে? এসব প্রশ্ন মাথায় ঘুর পাক খায়। অনলাইনে ইনকাম করার জন্য রয়েছে বিভিন্ন মাধ্যম। যেমন- www.upwork.com , www.frelancer.com , যারা আপনাকে কাজ করতে সুযোগ দিবে। এসব মিডিয়া গুলো বিদেশি কম্পানির থেকে কাজ এনে আপনাকে দিবে। কি কাজ? হতে পারে- ওয়েব সাইট ডিজাইন করা, লোগো বানানো, ইমেজ এডিন্টিং করা, সফটওয়্যার বানানো, অথবা আপনি ভাল ইংরেজিতে লিখতে পারেন তবে তাদের পছন্দ অনুযায়ী লিখে দেয়া। কাজ সম্পন্ন করতে পারলে আপনি ইউএস ডলার ($$$) পাবেন। এ জন্য আপনাকে হতে হবে কাজের বেপারে অনেক দক্ষযারা যে বিষয়ে দক্ষ তারা সে বিষয়ে কাজ করে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারে। কিন্তু আপনি হয়ত এই কাজের বেপারে দক্ষ নন। তো আপনি কি ইনকাম করতে পারবেন না? একে বারে না বলাটা ঠিক হবে না। হ্যা আপনি দক্ষ না হলেও অনলাইনে ইনকাম করতে পারবেন কিন্তু ইনকাম এর পরিমান হবে খুব কম। আমরা যারা কম্পিউটার দিয়ে ইন্টারনেট এর সাহায্যে বিভিন্ন পেইক ভিজিট করি, শুধু মাত্র এই পেইজ ভিজিট করে আপনি অল্প পরিমান ইনকাম করতে পারেন। কোন ওয়েবসাইট কোম্পানি যারা তাদের অ্যাডভারটাইজ দেয়ার জন্য ডলার খরচ করে। আপনি প্রতিদিন সেই পেইজ ভিজিট করে মানে তাদের অ্যাডভারটাইজ দেখে কিছু পরিমান ইনকাম করতে পারেন। তবে এর পরিমান খুব কম।

তিনটা ধাপ আমরা অনুসরণ করব-

১। যে ওয়েবসাইটে আপনি অ্যাডভারটাইজ দেখবেন সেই সাইটে রেজিস্ট্রেশন করা (রেজিস্ট্রেশন করতে আপনার- নাম(ছদ্দনাম হতে পারে),  একটা জিমেইল একাউন্ট লাগবে)
রেজিস্ট্রেশন করুন এই লিঙ্ক এ ভিজিট করে-  https://www.gptplanet.com/?ref=bdearner2
২। ওয়েব সাইটে লগইন করে প্রতিদিন কিছু সময় ধরে কিছু পেইজ ভিউ করা বা অ্যাডভারটাইজ দেখা এবং উপার্জন আরম্ভ করা।
৩। নির্দিষ্ট পরিমান ডলার ইনকাম হলে সেখান থেকে ডলার উত্তোলন (Withdraw/Cashout)করা আপনার কোন অনলাইন পেমেন্ট একাউন্টে যেমন হতে পারে- Payza. Bitcoin, Paypal ইত্যাদি। মিনিমান $1 ডলার ইনকাম হলেই আপনি ক্যাশাউট বা Withdraw করতে পারবেন।

অনলাইন পেমেন্ট একাউন্ট নিয়ে আমি পরবর্তী লেখা লিখব। আজ এ পর্যন্ত, কোন তথ্যের প্রয়োজন হলে কমেন্ট করে জানাবেন। ধন্যবাদ সবাইকে।


Wednesday, 31 January 2018

মাইক্রোসফট এক্সেল (পর্ব- ৩)


স্বাগতম সবাইকে আমারব্লগবিডি২৪ ব্লগে। গত তিনটা ব্লগে আমরা মাইক্রোসফট এক্সেল এর প্রাথমিক ধারনা থেকে শুরু করে যোগ, বিয়োগ, গুন, ভাগ সহ বেশি কিছু গাণিতিক সমস্যা ও তার সমাধান দেখেছিলাম। আজকের ব্লগে আমরা এক্সেলের তিন ধরনের গ্রাফ ও চার্ট নিয়ে আলোচনা করব। 
যে সকল গ্রাফ ও চার্ট দেখব আজকে তা হলে- 

১। লাইন চার্ট ( Line Chart )
২। কলাম চার্ট ( Column Chart ) ও
৩। পাই চার্ট ( Pie Ghart )


  • লাইন চার্ট ঃ  অনেক গুলো তথ্য কে যখন ডট দিয়ে ডিসপ্লে করা হয় লাইন আকারে তখন তাকে লাইন চার্ট বা লাইন গ্রাফ বলে। 
     http://velocicosm.com/5Rlk


লাইন চার্টের পুরো বিষয় বস্তু সম্পর্কে জানতে আমাদের ভিডিও টি দেখুন-


  • কলাম চার্ট ঃ একই রকমের অনেকগুলো তথ্যকে যখন আমরা কলাম বা সারি আকারে প্রকাশ করি তখন সেই গ্রাফ বা চার্টকে কলাম চার্ট বলে।



  • পাই চার্ট ঃ একটি পাই চার্ট হল একটি বৃত্তাকার পরিসংখ্যানগত গ্রাফিক যা সংখ্যাসূচক অনুপাতকে ব্যাখ্যা করার জন্য স্লাইসগুলিতে ভাগ করা হয়। একটি পাই চার্টে, প্রতিটি স্লাইসের চাপের দৈর্ঘ্য, এটি প্রতিনিধিত্ব করে এমন পরিমাণের সমানুপাতিক।



তিনটা ভিডিও দেখলে, আশা করি আপনারা এক্সেল দিয়ে যে কোন ধরনের চার্ট বা গ্রাফ বানাতে পারবেন।
ধন্যবাদ সবাইকে আমাদের সাথে থাকার জন্য। আমাদের ব্লগে ও ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। 

Visit Our Official website for learning more- www.itschool24.com

Monday, 22 January 2018

কিভাবে আপনার কম্পিউটার এর স্পিড বাড়াবেন?

আমরা কম্পিউটার যখন প্রথম বাজার থেকে কিনে এনে ব্যবহার করি তখন কম্পিউটার এর স্পিড থাকে অনেক ভাল। কম্পিউটার হ্যাং হয় না। কিন্তু কিছু দিন ব্যবহার এর পর কম্পিউটার স্লো হয়ে যায়।মনে হয় পিসির গতি  কমে গেছে বা কাজ করার সময় হ্যাং হয়ে যাচ্ছে। হ্যা, এরকম সমস্যা কম্পিউটার এর হয়। আমরা সমাধান হিসাবে একটা কাজই প্রায়ই করি তা হল আবার অপারেটিং সিস্টেম সেট আপ করা। কিন্তু এটা আসলে সঠিক সমাধান না। 
তাহলে আমরা কি করব এর সমাধান হিসাবে? আমরা আমাদের কম্পিউটারে একটা সফটওয়্যার ইন্সটল করব। সেই সফটওয়্যার কে রান করলে কম্পিউটাররের অপ্রয়োজনীয় ফাইল ও ডাটা সমূহকে ডিলিট করবে। ফলে কম্পিটার এর হার্ডডিস্ক থাকবে সুরক্ষিত। কম্পিউটার ফিরে পাবে পূর্বের মত গতি। 
আমরা যখন কম্পিটারে কাজ করি প্রতিদিন, তখন কম্পিউটার যে সকল ডাটা নিয়ে কাজ করে তা অস্থায়ী ভাবে সি ড্রাইভে রয়ে যায়। আমাদের উচিত প্রতিদিন কম্পিউটার অফ করিবার পূর্বে সেই সকল অপ্রয়োজনীয়  ডাটা ডিলিট করে দেয়া।
সফটওয়্যার ডাউনলোড লিঙ্কঃ   https://www.piriform.com/ccleaner/download
 কোন সফটওয়্যার, কিভাবে আমরা ইন্সটল দিব যাবতীয় ভিডিও নির্দেশনা দেখুন এই লিঙ্ক - https://www.youtube.com/watch?v=Dues_ZPNCPc&pbjreload=10 



আজ এই পর্যন্তই । ধন্যবাদ সবাইকে। আমাদের ইউটিউব চ্যানেল কে সাবস্ক্রাইব করুন আর আমাদের পরবর্তী পোস্ট ও ভিডিও দেখুন। 



Visit Our Official website for learning more- www.itschool24.com